অফবিটভাইরাল ভিডিও

Viral:’ঋণ শোধ নয়, কনকাঞ্জলির চাল দিয়ে অষ্টমঙ্গলায় ফ্রাইড রাইস খাব’-মায়ের কাছে আবদার কনের

কন্যা যখন শ্বশুর বাড়িতে যায়, তখন তা ঠিক আগে বাপের বাড়িতে মাকে আঁচল পেতে দিতে হয় এবং মায়ের মুখ না দেখেই কন্যা মায়ের আঁচল ভরে চাল দিয়ে যায় এবং বলতে হয় আমি তোমার সব ঋন শোধ করলাম কিন্তু বর্তমানে অবস্থাটা পুরোপুরি পাল্টে গেছে। এখন মেয়েরা অনেক প্রতিবাদী হয়েছে। তারা এই ধরনের সামাজিক প্রথা কে মানতে চায় না। তারা কিছুতেই ভাবতে চায় না, যে মা-বাবার ঋণ কখনো শোধ করা যায় না।

এক মুঠো চাল দিয়ে কখনো যে মায়ের ঋণ শোধ করা যায় না, তা আবারও প্রমাণ করে দিলেন এক যুবতীর সোশ্যাল মিডিয়ায় সম্প্রতি নানান রকম বিয়ের ভিডিও ভাইরাল হচ্ছে। কখনো তা মজার কখনো আবার বেশ শিক্ষামূলক এই ভাবেই নতুন প্রজন্ম সমস্ত কুসংস্কারকে ভেঙে দিয়ে এগিয়ে যাক সামনের দিকে। সম্প্রতি একটি ভিডিও ঝড়ের গতিতে ভাইরাল হয়েছে যেখানে দেখা যাচ্ছে লাল টুকটুকে বেনারসি পরে একটি মেয়ে বরের গাড়িতে উঠছে হাসতে হাসতে।

যেখানে এই সময় একেবারে কান্নাকাটি পড়ে যাওয়ার জোগাড়, সেইখানে সেখানে উপস্থিত থাকা প্রত্যেক অতিথিরাও রীতিমতন হাসছেন। মেয়ের কান্ড কারখানা দেখে মেয়ে বলে দিচ্ছে মাকে কনকাঞ্জলিতে দেওয়া চাল দিয়ে যেন মা ফ্রাইড রাইস বানিয়ে রাখে। অষ্টমঙ্গলায় এসে ওই ফ্রাইড রাইস খাবে। ভিডিওটি হয়তো কারুর কারুর ক্ষেত্রে মজার মনে হতে পারে, কিন্তু এই ভাবেই যদি সমাজকে পাল্টে ফেলা যায়। তাহলে মন্দ কি? হয়তো যারা পুরনো পন্থার মানুষ আছেন তাদের মনে একটু আঘাত লাগতে পারে। কিন্তু তাদের কেউ যদি বোঝানো যায় যে এই ধরনের কুসংস্কার এর কোন মানে হয় না। যদি বুঝিয়ে বলা যায় যে এখন যুগ অনেক পাল্টেছে আর মা-বাবার ঋণ কোনভাবেই কারোর পক্ষে শোধ করা সম্ভব নয়। তাহলে হয়তো সমাজটা একটু পাল্টে যেতে পারে। আসুন আমি আপনি সকলে মিলে সমাজ পাল্টাতে এই ভাবেই একটু একটু করে পা ফেলি।

দেখে নিন অসাধারণ ভিডিওটি

Back to top button