নিউজবিনোদন

নিজের ভাষাতেই একসাথে দুই ঘোষকে রগড়ে দিলেন পরিচালক সৃজিত, শিল্পীদের অপমানের যোগ্য জবাব দিলেন তিনি

এদিন বাংলার জয়ের পর বিজেপির রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষকে বহু তারকারা কথা শোনাতেও ছাড়েননি। বহু তারকারাই গর্জে ওঠেন দিলীপ ঘোষের উপর। এক সাক্ষাৎকারে দিলীপ ঘোষ অভিনেতা ও অভিনেত্রীদের উদ্দেশ্যে বলেছিলেন,, “শিল্পীদের বলছি আপনারা নাচুন, গান। ওটা আপনাদের শোভা পায়। রাজনীতি করতে আসবেন না। ওটা আমাদের ছেড়ে দিন। না হলে রগড়ে দেব।” উল্লেখ্য, অনির্বাণ ভট্টাচার্যর লেখা “আমি অন্য কোথাও যাব না, আমি এই দেশেতেই থাকব।” এই গানের উপর ভিত্তি করেই দিলীপ ঘোষ একটি সাক্ষাৎকারে এই কথা বলেছিলেন। এই মিউজিক ভিডিওতে দেখানো হয়েছে সি এ এ এবং এন আর সি র কাহিনী। পাকিস্থান ও ভারতের অঙ্ক বোঝানো হয়েছে। এই গানটিকে একটু ভালোভাবে নিরপেক্ষ হয়ে শুনলে বোঝা যাবে যে এই গানটি বিজেপির উদ্যেশেই রচনা করা হয়েছে। শিল্পীরা তাদের ভাবনা গানের মাধ্যমে সেখানে প্রকাশ করেছেন।

ইলেকশনের মধ্যে হার জিৎ তো থাকবেই। খেলার মধ্যে যেরকম হার জিৎ থাকে সেরকমই এখানেও হার ও জিতের ব্যাপারটা সেম। বাংলায় আবার তৃতীয়বার মমতা ব্যানার্জীর হাতে শাসনভার আসলো। এদিকে বিজেপি হেরে যাওয়াতে বিজেপি রাজ্য সভাপতি তৃণমূলের সদস্যদের বিরুদ্ধে যে মন্তব্য করেছিলেন তারই প্রত্রিক্রিয়া হিসেবে এবারে দিলীপ ঘোষের বিরুদ্ধের সোচ্চার সকলে নানান মন্তব্য করছেন। পরমব্রত ও অন্যান্য তারকাদের পর এবারে রাজ্য বিজেপির সভাপতিকে কটাক্ষ করে ফের সরব হলেন পরিচালক সৃজিত মুখার্জি। তবে শুধুমাত্র দিলীপ ঘোষকে নয় তার পাশাপাশি ঘোষ ব্রাদার্স ওরফে রুদ্রনীল ঘোষকে বিঁধলেন। তাও আবার রুদ্রনীল অভিনীত সিনেমা “ভিঞ্চি দা” র একটি সংলাপ দিয়ে।

এবারের নির্বাচনে ভবানীপুরের প্রার্থী ছিলেন রুদ্রনীল ঘোষ। এই নির্বাচনে তিনিও গো হারান হেরে গেছেন । গতকাল দিলীপ ঘোষের মত ভবানীপুরের প্রার্থী রুদ্রনীল ঘোষ ও গোহারান হেরেছে। আর সৃজিতের পোস্টে বিধ্বস্ত রুদ্রনীল ঘোষ এবং বিজেপি রাজ্য সভাপতিকে দুজনকে হাসতে হাসতে গালে থাপ্পড় মারলেন। এই মিমে ভিঞ্চিদা’কে অনুঘটক করলেন পরিচালক মশাই।

ভিঞ্চিদা সিনেমার একটি দৃশ্য মিমের আকারে তুলে ধরেছেন তিনি নিজের সোশ্যাল মিডিয়ার পাতাতে।এই দৃশ্যে রুদ্রনীলের সংলাপ দেখা যাচ্ছে, ‘অন্যকে রগড়াতে গিয়ে নিজেই কখন রগড়ে যাবেন! আপনি ধরতে পারবেন না’। পাশে কান্নার ইমোজি। আর এই দেখে রাগে আগুন হয়ে গেছে দিলীপ ঘোষ তারই একটি ছবি মুখের ছবি রয়েছে ইনসেটে। সঙ্গে ক্যপশানে পরিচালক মন্তব্য করলেন, জানি, চারিদিকে মহামারির জন্য কঠিন সময় চলছে। পাশাপাশি তিনি লেখেন একজন সাধারণ শিল্পী হিসেবে এটা শেয়ার না করে পারলাম না। এইভাবেই শিল্পীদের রগড়ে দেওয়া নিয়ে প্রতিবাদ করলেন তারা।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button