অফবিট

গাছ লাগিয়ে গিনেস বুক অফ ওয়ার্ল্ড রেকর্ডস করলেন ভারতীয় যুবক , জেনেনিন তার পরিচয়

একটি কাজ তার নামও পাল্টে দিয়েছে। প্রকৃত নাম নরপত সিং। মানুষ তাকে এখন ‘গ্রিনম্যান’ নামে ডাকেন। নিজেদের বিরল সব কৃতিত্বের মাধ্যমে নজিরবিহীন রেকর্ড তৈরি করেন অনেকেই। প্রায়ই এমন প্রসঙ্গ উঠে আসে খবরের শিরোনামেও।
ভারতের রাজস্থানের বারমেরের বাসিন্দা নরপত সিং রাজপুরোহিত নিজের নাম গিনেজ বুকে লিখিয়েছেন কীভাবে জানেন? তিনি প্রায় ৩০ হাজার ১২১ কিলোমিটার সাইকেল চালিয়ে এক অনন্য রেকর্ড গড়েছেন। এমনকি, এই নজিরবিহীন কৃতিত্বের জন্যই তার নাম গিনেস বুক অফ ওয়ার্ল্ড রেকর্ডসে নথিভুক্ত হয়েছে। সবচেয়ে উল্লেখযোগ্য বিষয় হচ্ছে, নরপত দেশের মধ্যে প্রথম কোনো ব্যক্তি হিসেবে এমন কীর্তি স্থাপন করেছেন।

তিনি পৌঁছে গিয়েছেন ২৯ টি রাজ্যে: নরপত ২০১৯ সালের জানুয়ারিতে জম্মু থেকে তার সাইকেল সফর শুরু করেছিলেন। গত বছরের এপ্রিলে জয়পুর পৌঁছেছিলেন তিনি। তার পুরো ভ্রমণকালে তিনি মোট ২৯ টি রাজ্য সাইকেল চালিয়ে কভার করেছেন। এদিকে, করোনার মত ভয়াবহ মহামারীর সময়টাতে নরপতকে একাধিক সমস্যার সম্মুখীন হতে হয়েছিল। এমনকি, এমনো দিন কেটেছে যেদিন খাওয়ারটুকুও পাননি তিনি। এমতাবস্থায়, ক্ষুধার্ত অবস্থাতেই ঘুমোতে হয়েছে তাকে। যদিও, এইসব প্ৰতিবন্ধকতাকে দূরে সরিয়ে রেখেই তিনি তার লক্ষ্যে অবিচল ছিলেন।

এদিকে, নরপত এক সাক্ষাৎকারে জানিয়েছিলেন যে, করোনার জেরে লকডাউন চলাকালীন, তিনি প্রায় চার মাস তামিলনাড়ুতে তার সাইকেল যাত্রা বন্ধ রেখেছিলেন। তখন তাকে প্রায়শই শুধু বিস্কুট খেয়ে থাকতে হত। প্রসঙ্গত উল্লেখ্য যে, নরপত এই সমগ্ৰ সফরে ৯৩ হাজার চারাগাছ রোপণ করেছিলেন। মূলত, তার লক্ষ্য ছিল এই সফরের মাধ্যমে পরিবেশ রক্ষার বিষয়টিও মানুষের কাছে প্রকাশ করা।

ইতিহাস সৃষ্টি করেন গ্রিনম্যান নরপত সিং: এই সফরকালে নরপত স্কুল, কলেজ ও রেল স্টেশনে চারাগাছ বিতরণ করেন। পাশাপাশি মানুষের কাছে তার বার্তা পৌঁছে দিতে তিনি প্রচুর সভাও করেছেন। নরপত জানান, এক দুর্ঘটনায় তার হাতও ভেঙে গেছে। একই সঙ্গে উপকূলীয় এলাকায় একাধিক সমস্যারও সম্মুখীন হতে হয় তাকে। জিপিএস সিস্টেমের সাহায্যে তিনি তার এই ঐতিহাসিক যাত্রা সম্পন্ন করেন।

Back to top button